অতিরিক্ত খরচের হাত থেকে রক্ষা পাওয়ার ৮ টি উপায়

শপিং আপনার সমস্যার মূল কারণ হতে পারে। অতিরিক্ত শপিং এর কারণে আপনার ক্রেডিট কার্ডের দায় দিনের পর দিন বেড়ে যেতে পারে অথবা আপনি ঋণের বেড়াজালে আটকা পড়ে যেতে পারেন। নিচের ৮ টি টিপস এবং ট্রিকস যা আপনাকে অতিরিক্ত খরচের হাত থেকে রক্ষা করবে।অতিরিক্ত খরচের হাত থেকে রক্ষা পাওয়ার ৮ টি উপায়

১। লিস্ট ধরে কেনাকাটা করুন
বাজার করার জন্য আগে থেকেই লিস্ট তৈরি করে রাখুন। তালিকা অনুযায়ী কেনাকাটা করুন। লিস্টের বাইরে কেনাকাটার না করার চেষ্টা করুন। মার্কেট যাচাই করে তবেই কেনাকাটা করুন।

২। ধীরে চল নীতি অনুসরণ করুন
কোন কিছু কেনার দরকার হলে তাড়াতাড়ি সেটি কেনার জন্য ঝাঁপিয়ে পড়বেন না। এক ঘণ্টা, এক দিন অথবা এক সপ্তাহের জন্য হলেও অপেক্ষা করার চেষ্টা করুন। অবশেষে যদি জিনিসটি আপনার সত্যিই প্রয়োজন হয় তাহলে চিন্তা-ভাবনা করেই তারপর কেনাকাটা করুন।

৩। ক্যাশ টাকা দিয়ে কিনুন
বাজারের লিস্ট অনুযায়ী একটা খসড়া হিসাব করে সে অনুযায়ী টাকা নিয়ে বাজারে যান। ডেবিট কার্ড অথবা ক্রেডিট কার্ড ব্যবহার করে কেনাকাটার করা পরিহার করুন। সবসময় ক্যাশ টাকা দিয়ে কেনাকাটা করুন। দেখবেন আপনার খরচ অনেক কমে যাবে।

৪। একা বাজার করতে যান
চেষ্টা করুন বাচ্চা অথবা স্বামী/স্ত্রীকে মার্কেটে নিয়ে না যেতে। কারণ, এদের সাথে নিয়ে গেলে আপনি দ্বিধা-দ্বন্দ্বে পরে যেতে পারেন। তবে আপনার সঙ্গী বা সঙ্গিনী যদি কেনাকাটায় পারদর্শী হয়, তাহলে তাকে সাথে করে নিয়ে যেতে পারেন। এছাড়াও আপনি আপনার বিশ্বস্ত কোনো বন্ধুকে সাথে নিয়ে বাজার যেতে পারেন যেকিনা কেনাকাটার ব্যাপারে সচেতন ।

আরো পড়তে পারেন:  পারিবারিক সঞ্চয়পত্র কি

৫। বাজেট অনুযায়ী কেনাকাটা করুন
খরচ কমানোর যদিও কোনো নির্দিষ্ট পন্থা কোন নেই। তবুও বাজেট অনুযায়ী কেনাকাটা করার চেষ্টা করুন। কারণ, একমাত্র আপনিই জানেন যে আপনার বাজেট কত এবং বাজেটের বাইরে কেনাকাটা করলে আপনাকে কত কষ্ট সহ্য করতে হবে। তাই চেষ্টা করুন আয় বুঝে ব্যয় করতে।

৬। বিনোদন হিসাবে কেনাকাটা বন্ধ করুন
কেনাকাটা যদি আপনার বিনোদন বা নেশা হয়ে থাকে, তাহলে আপনার আইডিয়া বদলান। বিনোদনের অন্য কোন উৎস খুঁজে বের করুন। দেখবেন আপনার খরচ অনেক কবে গিয়েছে। কিছু বন্ধু-বান্ধবীদের ব্যাপারে সচেতন থাকুন, যারা অতিরিক্ত ব্যয় করতে পছন্দ করে। এমন বন্ধু-বান্ধবী নির্বাচন করুন, যারা আপনার অর্থ ও সঞ্চয়ের ব্যাপারে যত্নশীল।

৭। রিটার্ন পলিসি
পণ্যটি কেনার আগে অবশ্যই রিটার্ন পলিসি সম্পর্কে জেনে নিন। এমন কোন জিনিস কিনবেন না, যেটা রিটার্ন দেয়া যাবে না। যে কোন কারণে আপনার পণ্যটি বাসা পর্যন্ত পৌঁছানোর আগেই পণ্যটি ভেঙ্গে যেতে পারে অথবা দাগ পড়তে পারে।

৮। সাহায্য নিন
অতিরিক্ত খরচের কারণে যদি আপনি আর্থিক, সম্পর্ক অথবা সামাজিক সমস্যার সম্মুখীন হন, তাহলে আপনার অন্য কারো সাহায্য নেয়া উচিত।

Recommended For You

About the Author: এডমিন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *